ICT

ডিজিটাল টেলিফোন এর প্রধান বৈশিষ্ট্য

ডিজিটাল ইলেকট্রনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করে ডিজিটাল টেলিফোন সার্ভিস ও সিস্টেমের সুবিধা সংবলিত ফোনই ডিজিটাল টেলিফোন৷

১৯৬০ সালে কোর নেটওয়ার্ক ব্যবহৃত হয়ে অ্যানালগ টেলিফোনের স্থান দখল করে ডিজিটাল টেলিফোন। ডিজিটাল টেলিফোনে অল্প খরচে কথা আদান-প্রদান করে এবং দ্রুততার সাথে ডিজিটাল সুবিধা নিয়ে টেলিফোনের লাইনে ডেটা পাঠায়। (PSTN (Public Switched Telephone Network)

নেটওয়ার্কের ধারণক্ষমতা ও কোয়ালিটি উন্নয়ন কাজে সমান গতিতে এগিয়ে চলছে।

ডিজিটাল টেলিফোন এর প্রধান বৈশিষ্ট্য

এক সময় আমরা এনালগ টেলিফোন ব্যবহার করে যোগাযোগ করতাম।

বর্তমানে ব্যবহৃত প্রায় সকল টেলিফোনই ডিজিটাল ফোন। ডিজিটাল টেলিফোনের প্রধান বৈশিষ্ট্য রয়েছে।

যেমন-

১. অ্যানালগ ফোনের চেয়ে ডিজিটাল টেলিফোনের দক্ষতা অনেক বেশি।

২. ডিজিটাল সিস্টেম RF ট্রান্সমিটার পাওয়ারকে হ্রাস করে।

৩. আন্তর্জাতিক ও ওয়াইড এরিয়ার রোমিং সুবিধা বেশি।

৪. খরচ অনেক কম।

৫. এর নিরাপত্তা ও প্রাইভেসি অনেক বেশি।

৬. এটি পরিবেশ বান্ধব এবং দীর্ঘ সময় ব্যবহারেও নষ্ট হয় না।

আরো পড়ুনঃ টেলিকনফারেন্সিং কি

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button