Blog

বিশ্বগ্রাম ধারণার প্রবক্তা কে

বিশ্বগ্রাম ধারণার প্রবক্তা কে: অধ্যাপক মার্শাল ম্যাকলুহান ১৯৬৪ সালে “Understanding Media” নামক বই-এ বিশ্বগ্রামের ধারণা দেন। অর্থাৎ তিনি ১৯৬৪ সালে বিশ্বগ্রামের ধারনা দেন। তবে বিশ্বগ্রাম শব্দটি সর্বপ্রথম ব্যবহার করা হয় ১৯৬৮ সালে মার্শাল ম্যাকলুহান ও কুইনসন ফিয়ার এর লেখা “War and Peace in the Global Village” বইয়ে।

বইটিতে দেখানো হয়েছে যে, বৈদ্যুতিক প্রযুক্তি ব্যবহার করে এবং তথ্যের দ্রুত বিচরণ পুরো বিশ্ব আমাদের সামনে একটি গ্রাম বা ভিলেজ হিসেবে দৃশ্যমান হচ্ছে। এর মূল ধারণা হলো- বর্তমান বিশ্ব ইলেকট্রনিক মিডিয়া ও পারস্পরিক সম্পর্কের জন্য একটি বিশ্বগ্রামে পরিনত করা। তাদের এসব চিন্তা-ভাবনার মাঝে আজকের দিনের ইন্টারনেটের ধারণাটা চলে আসে।

ইন্টারনেট পুরো পৃথিবীকে একই নেটওয়ার্কের আওতায় নিয়ে এসেছে যাকে বলা হয় World Wide Web (WWW)। এর ফলে বিশ্বের এক প্রান্তে বসে অন্য প্রান্তের কোনো মানুষের সাথে অর্থাৎ এক দেশ থেকে অন্য দেশে সহজে যোগাযোগ রক্ষা করা সম্ভব হচ্ছে। তাই পুরো বিশ্ব এখন গ্রামের মতো ছোট মনে হয়।

প্রশ্নঃ বিশ্বগ্রাম ধারণার প্রবক্তা কে?

উত্তরঃ মার্শাল ম্যাকলুহান।

বিশ্বগ্রাম ধারণার প্রবক্তা কে সহজ ব্যাখ্যা

মার্শাল ম্যাকলুহান পুরো পৃথিবীকে একটি গ্রামের সাথে তুলনা করেছেন। তবে তিনি বর্তমান গ্রামের সাথে তুলনা করেনি। কারন বর্তমান ইন্টারনেট ভিত্তিক দুনিয়াতে গ্রাম আর শহরের মধ্যে কোন পার্থক্য নেই।

তিনি তখনকার ইন্টারনেটবিহীন গ্রামের সথে বর্তমান ইন্টারনেট ভিত্তিক পৃথিবীর তুলনা করেছেন। কারণ গ্রামের মানুষ যেমন একে অন্যকে খুব ভালোভাবে চিনতো। তেমনি কারো বিপদ হলে সবাইকে দ্রুত জানানো সম্ভব হতো। অর্থাৎ যেকোনো তথ্য গ্রামের সকল মানুুুষকে জানাতে খুব বেশি সময় লাগতোনা। কারণ গ্রামের আয়তন শহর বা দেশের তুলনায় অনেক ছোট।

অন্যদিকে, ইন্টারনেটবিহিন একটি শহর বা দেশের মানুষ একে অপরকে চিনতো না কারণ শহর বা দেশের মানুষ গ্রামের তুলনায় অধিক। এবং যেকোন তথ্য পুরো শহর বা দেশে পৌঁছানো প্রচুর সময়সাপেক্ষ ব্যাপার ছিল। তখনকার মানুষ চিঠির মাধ্যমে তথ্য আদান-প্রদান করতো। এবং এতে প্রচুর সময় লাগতো।

কিন্তু বর্তমানে ইন্টারনেটের কল্যাণে পুরো বিশ্ব হাতের মুঠোয় চলে এসেছে। পুরো বিশ্ব হয়ে গিয়েছে একটি গ্রামের মতো। এখন যেকোন তথ্য কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে যেকোনো জাইগায় পাঠানো সম্ভব হচ্ছে। এখনকার পুরো বিশ্ব আর তখনকার একটি ছোট গ্রামের মধ্যে কোন পার্থক্য নেই। ঠিক একারণেই অধ্যাপক মার্শাল ম্যাকলুহান পুরো বিশ্বকে একটি গ্রামের সাথে তুলনা করেছিলেন।

মার্শাল ম্যাকলুহান ইন্টারনেট আবিস্কারের ৩০ বছর আগে বিশ্বগ্রাম বা Global Village এর ধারণা দেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button